আন্তর্জাতিক

পাকিস্তানে তাবলিগ জামাতের ২০ হাজার মুসল্লি কোয়ারেন্টিনে

আন্তর্জাতিক বার্তা : পাকিস্তানে করোনা পরিস্থিতির অবনতি হয়েছে। এর প্রেক্ষিতে গত মাসে লাহোরে এক ইসলামিক জমায়েতে যোগ দেয়া ২০ হাজার মুসল্লিকে কোয়ারেন্টিনে নিয়েছে পাকিস্তান। জমায়েতে যোগ দেয়া আরো কয়েক হাজার মানুষকে খুঁজছে প্রশাসন।

রোববার এসব কথা বলেছেন পাকিস্তানের কর্মকর্তারা।

এ খবর দিয়ে অনলাইন টিআরটি বলছে, লাহোরে ওই জমায়েত আয়োজন করেছিল স্থানীয় তবলিগ জামাত। ১০ই মার্চ থেকে ১২ই মার্চ পর্যন্ত অনুষ্ঠিত হয় ওই জামাত। আশঙ্কা করা হচ্ছে যে, সেখান থেকে পাকিস্তানে এবং অন্য দেশে ছড়িয়ে পড়ছে করোনা ভাইরাস। ওই তাবলিগ জামাতে যোগ দিয়েছিলেন কমপক্ষে এক লাখ মানুষ।

করোনার কারণে এ কর্মসূচি বাতিল করার আহ্বান জানিয়েছিল সরকার। কিন্তু তারা সেই আহ্বানের প্রতি তোয়াক্কাই করে নি। ওদিকে লাহোরের ওই জামাতে যোগ দিয়েছিলেন এমন কমপক্ষে ৫৩০০ তাবলিগি মুসলিম ও ধর্মীয় নেতাকে এরই মধ্যে কোয়ারেন্টিনে নিয়েছে উত্তরপশ্চিমাঞ্চলীয় প্রদেশ খাইবার পখতুনখাওয়া কর্তৃপক্ষ।

বার্তা সংস্থা এএফপিকে ওই অঞ্চলের মুখপাত্র আজমল ওয়াজির বলেছেন, স্বাস্থ্য বিষয়ক কর্মকর্তারা করোনা ভাইরাসের পরীক্ষা করছেন। এরই মধ্যে অনেকের শরীরে এই ভাইরাস পাওয়া গেছে। এই প্রদেশের আরো হাজার হাজার তাবলিগি মুসল্লি অন্য প্রদেশে আটকা পড়েছে। কারণ, দেশের বড় বড় মহাসড়কগুলো বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। লাহোরের কেন্দ্রীয় শহর পাঞ্জাবে কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়েছে প্রায় ৭০০০ মানুষকে। সিন্ধুতে এ সংখ্যা ৮০০০। বেলুচিস্তান প্রদেশে বিপুল সংখ্যক মানুষকে আইসোলেশনে থাকতে বাধ্য করা হয়েছে। ফলে তাবলিগ সংক্রান্ত মসজিদ এবং তাদের কার্যক্রম মার্চের শেষ নাগাদ বন্ধ করেছে কর্তৃপক্ষ। গত মাসে তাবলিগ জামাতে যোগ দিয়েছিলেন এমন কমপক্ষে ১৫৪ জনের দেহে করোনা ভাইরাস সংক্রমণ পাওয়া গেছে।

আরও দেখুন

এরকম আরও খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এটাও পড়ুন

Close
Close