আলোচিতস্বাস্থ্য

মিরপুরে মায়ের লাশ নিয়ে বসে আছেন ছেলে, এগিয়ে আসছে না কেউ

বার্তাবাহক ডেস্ক : রাজধানীর মিরপুর মডেল থানা এলাকার মিরপুর-১ পাইকপাড়া আহমেদ নগরের একটি বাসায় মায়ের লাশ নিয়ে সকাল থেকে বসে আছেন দুই ছেলে। কিন্তু ওই নারী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন সন্দেহে এলাকাবাসী, এমনকি আত্মীয়-স্বজনরা কেউ লাশ দাফনের জন্য ওই বাসায় যায়নি।

মৃত নারীর ছেলে জানিয়েছেন, বৃহস্পতিবার ভোররাতে তাদের মা জয়গুন নেসা (৮৫) কিডনিজনিত সমস্যায় মারা গেছেন। তার মধ্যে করোনার কোনো উপসর্গই ছিল না।

পুলিশ বলছে, মৃতের আত্মীয়-স্বজনরাও কেউ ভয়ে ওই বাড়িতে যাচ্ছে না। মৃত ওই মায়ের লাশের দাফনের জন্য স্বেচ্ছাসেবী কোনো সংগঠনের খোঁজ করা হচ্ছে। কোনো চিকিৎসকের কাছে থেকে ওই নারীর মৃত্যুর সনদপত্র নিতে পরিবারের সদস্যদের বলা হয়েছে।

মৃত ওই নারীর বড় ছেলে শাজাহান মিয়া বলেন, ‘আমার দুই ছেলে, স্ত্রী এবং মাকে নিয়ে এই বাসায় থাকতাম। বৃহস্পতিবার ভোররাতে মা কিডনিজনিত সমস্যায় মারা গেছেন। সকাল থেকে সরকারি-বেসরকারি সমস্ত জায়গায় ফোন দিয়েও এখন পর্যন্ত মায়ের দাফন-কাফনের ব্যবস্থা করতে পারিনি। মায়ের লাশ সামনে নিয়ে বসে আছি।’

স্থানীয়দের দাবি, শাহজাহান মিয়ারও করোনার উপসর্গ আছে। তার পরিবারের সকলেই করোনা আক্রান্ত হতে পারে। তার পরিবারের সদস্যদের করোনা পরীক্ষা করাতে পারলেই মৃত্যুর কারণ জানা যাবে।

এই বিষয়ে মিরপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, ‘মৃত ওই নারীর ছেলে আমাদের সঙ্গে যোগাযোগ করেছে। আমি নিজে আইইডিসিআরে কথা বলেছি। এছাড়া আরও কয়েকটি জায়গায় কথা বলেছি। লাশ দাফন করতে তাদের প্রতিবেশী বা আত্মীয়-স্বজনরা কেউই এগিয়ে আসেনি।’

ওসি আরও বলেন, ‘আইইডিসিআর ওই নারীর বিষয়ে শোনার পর প্রাথমিকভাবে জানিয়েছে, তিনি করোনায় মারা যাননি।’

মৃত ওই নারীর লাশ দাফনের জন্য স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনগুলোর সঙ্গেও যোগাযোগ করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন ওসি।

আরও দেখুন

এরকম আরও খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close