আলোচিতস্বাস্থ্য

কুষ্টিয়ার ল্যাবে ৬৫ জনের করোনা পজিটিভ, আইইডিসিআরে নেগেটিভ

বার্তাবাহক ডেস্ক : কুষ্টিয়ার পিসিআর ল্যাবে ৬৫ জনের করোনা পজেটিভ আসলেও আইইডিসিআর’এর ল্যাবে তাদের রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে। এর আগে নানা নাটকীয়তা শেষে চারদিনের মাথায় বৃহস্পতিবার রাতে ৬৭ জনের নমুনা পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশ করে কুষ্টিয়া সিভিল সার্জন। তাদের সবারই হয়েছিলো।

কিন্তু আইইডিসিআর’এর ফলাফলে দুজনের করোনা পজিটিভ এবং বাকি ৬৫ জনের নেগেটিভ দেখানো হয়েছে।

সোমবার কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে স্থাপিত ল্যাবে চার জেলার ১৭৩ নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এর মধ্যে কুষ্টিয়ার এক উপজেলা চেয়ারম্যান, এসিল্যান্ড, সরকারি হাসপাতালের দুই চিকিৎসকসহ নারায়ণগঞ্জফেরত একই পরিবারের চারজন সদস্য, ঢাকা ফেরত এক তরুণী এবং অপর এক পরিবারের স্বামী-স্ত্রী ও তাদের তিন সন্তানসহ আর তিন জেলার ৬৭ জনের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়।

আগের তুলনায় অস্বাভাবিকভাবে পজিটিভ রোগীর সংখ্যা বেড়ে যাওয়ায় বিপাকে পড়েন কর্তৃপক্ষ। এ নিয়ে কোনো মন্তব্য করতে রাজি হয়নি সিভিল সার্জন ও হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। ফলাফল নিয়ে কয়েকদিন ধরে চলে নানা নাটকীয়তা।

দুদিন পর সিভিল সার্জন কার্যালয় থেকে জানানো হয়, ওই ফলাফল স্থগিত করা হয়েছে। নতুন করে নমুনা আইইডিসিআরে পাঠানো হয়েছে। সেখান থেকে রি-চেক করে চূড়ান্ত ফলাফল দেয়া হবে।

বৃহস্পতিবার রাতে আইইডিসিআর থেকে রি-চেক করে প্রেরণ করা ৬৭ জনের করোনা পরীক্ষার ফলাফল নিশ্চিত করেন কুষ্টিয়ার সিভিল সার্জন ডা. এইচ এম আনোয়ারুল ইসলাম।

এর মধ্যে মেহেরপুর ও চুয়াডাঙ্গা জেলার দুইজনের করোনা পজিটিভ এবং বাকি ৬৫ জনের নেগেটিভ ফলাফল এসেছে। ওই ফলাফলে কুষ্টিয়ার কারো শরীরে করোনা সনাক্ত হয়নি।

কুষ্টিয়ার সিভিল সার্জন ডা. এইচ এম আনোয়ারুল ইসলাম জানান, সোমবার কুষ্টিয়া ল্যাবে ৬৭ জনের নমুনা পরীক্ষার ফলাফলে সন্দেহ হয়। পরে নতুন করে ওই সব ব্যক্তিদের নতুন নমুনা সংগ্রহ করে রি-চেক করতে আইইডিসিআরে পাঠানো হয়। সেখানকার ফলাফলে পরিবর্তন হয়ে ৬৭ জনের মধ্যে দুজনের পজিটিভ এবং বাকিদের নেগেটিভ হয়েছে।

 

সূত্র: প্রতিদিনের সংবাদ

আরও দেখুন

এরকম আরও খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এটাও পড়ুন

Close
Close