আলোচিতস্বাস্থ্য

সুনামগঞ্জের করোনা পজেটিভ ৪ জন গাজীপুরের পোশাককর্মী

বার্তাবাহক ডেস্ক : গাজীপুর থেকে সুনামগঞ্জে যাওয়া চার পোশাককর্মীর নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার পর  মঙ্গলবার (৫ মে) পাওয়া রিপোর্ট থেকে জানা যায় তাঁরা সকলেই করোনা পজেটিভ। 

বর্তমানে তাঁরা চারজন পূণরায় তাদের কর্মস্থল গাজীপুরে ফিরে এসেছে।

সত্যতা নিশ্চিত করেছেন সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. ইকবাল হোসেন।

ডা. ইকবাল হোসেন বলেন, ‘তাদের নমুনা সংগ্রহের ১৩ দিন পর  নিশ্চিত হওয়া যায় তারা করোনা আক্রান্ত। উপজেলায় আক্রান্ত ছয় জনের রিপোর্ট আসার পর তাদের অবস্থানের তথ্য নিশ্চিত করতে গিয়ে প্রথমে জানা যায় যে আক্রান্ত এক ব্যক্তি ইতোমধ্যে গাজীপুরে তার কর্মস্থলে চলে গেছেন। পরে ওই গ্রামে গিয়ে দেখা যায় একজন নয়, বরং আক্রান্তদের ৪ জন ফিরে গেছেন গাজীপুরে।’

তিনি জানান, আক্রান্ত ৪৫ বছর বয়সী এক পুরুষ ও তার দুই মেয়ে একটি পোশাক কারখানায় এবং একই গ্রামের আরেক ৩০ বছর বয়সী নারী অপর একটি পোশাক কারখানায় কর্মরত আছেন বলে প্রাথমিকভাবে তথ্য পাওয়া গিয়েছে।

আক্রান্ত বাকি দুইজনকে আইসোলেশনে রাখা হয়েছে এবং গাজীপুরে চলে যাওয়া চার জনের অবস্থান নিশ্চিত হয়ে স্থানীয় প্রশাসনের মাধ্যমে পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও জানান এ স্বাস্থ্য কর্মকর্তা।

গত ২০ এপ্রিল গাজীপুর থেকে তারা গ্রামের বাড়ি সুনামগঞ্জের তাহিরপুরে যায়। পরে সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসেবেই তাদের নমুনা সংগ্রহ করে সিলেটে পাঠানো হয় ২২ এপ্রিল।

এদিকে, ২২ থেকে ২৭ এপ্রিলের মধ্যে সিলেটের ল্যাবে পরীক্ষা না হওয়ায় জমে যাওয়া সিলেট বিভাগের ৬৬৭টি নমুনা পাঠানো হয় ঢাকায়, যার মধ্যে ৭৯টি নমুনায় করোনা পজিটিভ এসেছে বলে জানানো হয় গত ২ মে।

ল্যাব আইডি দিয়ে ঢাকায় পাঠানো এসব নমুনার তথ্য যাচাই শেষে মঙ্গলবার (৫ মে) সকালে নিশ্চিত হওয়া যায় কারা কারা আক্রান্ত হয়েছেন।

উল্লেখ্য : গত ৩ মে গাজীপুরে দুই পোশাক কারাখনার দুই শ্রমিক করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছিলেন।

তাদের একজন মহানগরীর গাছা এবং আরেকজন টঙ্গী এলাকায় পোশাক কারাখনায় কাজ করেন বলে পুলিশ জানিয়েছে।

একজন শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও অপরজন টঙ্গীর গণস্বাস্থ্য নগর হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রয়েছেন।

 

আরও দেখুন

এরকম আরও খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এটাও পড়ুন

Close
Close