আলোচিত

টঙ্গী পাইলট স্কুলের লাগামহীন ‘অনিয়ম-দুর্নীতি’র প্রতিবাদ করায় অভিভাবকদের ‘হুমকি’

বার্তাবাহক ডেস্ক : টঙ্গী পাইলট স্কুল এন্ড গার্লস কলেজে ‘চলমান লাগামহীন অনিয়ম-দুর্নীতির প্রতিবাদ করায় এবং ম্যানেজিং কমিটি গঠনের দাবী করায় অভিভাবকদেরকে বিভিন্নভাবে হুমকি দেওয়া অব্যাহত রয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন অভিভাবক ফোরামের আহবায়ক আব্দুস সাত্তার মোল্লা’।

তিনি বলেন, প্রতিষ্ঠান কর্তৃপক্ষ অনিয়ম ও দুর্নীতির দায় থেকে রক্ষা পেতে অভিভাবকদের হুমকি প্রদানসহ নানামুখী অপতৎপরতা চালাচ্ছেন। পাইলট স্কুল এন্ড গার্লস কলেজ মাঠ দখল করে গড়ে তুলা অধ্যক্ষের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের পার্টনারকে দিয়ে আরেকটি কাউন্টার অভিভাবক ফোরাম গঠন করে পরিকল্পিতভাবে বিতর্ক সৃষ্টি করা হচ্ছে।

সাধারণ অভিভাবকদের ন্যায্য দাবী ও অনিয়ম-দুর্নীতির দায় থেকে রক্ষা পেতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও অপপ্রচার চালানো হচ্ছে। অনিয়ম-দুর্নীতির প্রতিবাদ ও অভিভাবকদের ন্যায্য দাবী আদায়ের জন্য যখন অভিভাবকরা সোচ্চার ঠিক সেই মূহুর্তে অভিযুক্তরা পুলিশ কর্মকর্তাদের সাথে সৌজন্য সক্ষাতের নামে প্রতিবাদকারীদেরকে পরোক্ষভাবে পুলিশী হয়রানীর হুমকি দিচ্ছে। ‘মহানগর পুলিশ কমিশনারের সাথে তাদের সৌজন্য সাক্ষাতের ছবি ফেসবুকে ভাইরাল করে শাক দিয়ে মাছ ঢাকার ব্যর্থ চেষ্টা করা হচ্ছে’।

অভিভাবক ফোরামের আহবায়ক আব্দুস সাত্তার মোল্লা অভিযোগ করে বলেন, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের খেলার মাঠটি হকারদের কাছে ভাড়া দেওয়াসহ বাণিজ্যিকভাবে ব্যবহার করা হলেও এই খাতের কোন অর্থ স্কুল ফান্ডে জমা না দিয়ে কুক্ষিগত করা হচ্ছে। গত বৈশাখী মেলায় স্কুল মাঠে বিভিন্ন স্টল ভাড়া বাবদ প্রায় ১১ লাখ টাকা কুক্ষিগত করা হয়েছে। এসব টাকা দিয়ে প্রতিষ্ঠানটির টয়লেটগুলোও যদি পরিষ্কার করা হতো তবুও শিক্ষার্থীদের উপকার হতো মন্তব্য করে তিনি জানান, সম্প্রতি একজন ছাত্রী টয়লেটের উৎকট দুর্গন্ধে অজ্ঞান হয়ে পড়েছিল। প্রতিষ্ঠানের মূল ভাউন্ডারির ভেতর খেলার মাঠ হকারদের দখলে থাকায় ছাত্র-ছাত্রীদের খেলা-ধূলাও বিঘ্নিত হচ্ছে।

এদিকে এ সংক্রান্তে সংবাদ প্রকাশ করায় অধ্যক্ষ আলাউদ্দিন মিয়া ও শিক্ষক প্রতিনিধি আবু জাফর আহমেদ হকারদের উস্কে দিয়ে গত মঙ্গলবার স্কুল প্রাঙ্গনে সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ করান। অভিভাবকদের এসব অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে সংবাদ প্রকাশ করায় সংশ্লিষ্ট সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে স্কুল মাঠের হকারদেরকে লেলিয়ে দেওয়া হচ্ছে।

এ ব্যাপারে নিরাপত্তাহীনতার আশঙ্কায় দৈনিক নয়া দিগন্তের টঙ্গী প্রতিনিধি আজিজুল হক গত ৯ জুলাই জিএমপির টঙ্গী পশ্চিম থানায় জিডি করতে গেলে পুলিশ রহস্যজনককারণে এখনো জিডি নথিভুক্ত করেনি।

অভিভাবক ফোরামের আহবায়ক আব্দুস সাত্তার মোল্লা আরো বলেন, স্থানীয় সংসদ সদস্য ও প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল বর্তমানে দেশের বাইরে অবস্থান করছেন। তিনি দেশে ফিরলে তাকে সব ঘটনা অবহিত করা হবে। এর পর বিভিন্ন কর্মসূচী ঘোষণা করা হবে।

 

এ সংক্রান্ত আরো জানতে……….

টঙ্গী পাইলট স্কুলের লাগামহীন অনিয়ম দুর্নীতি: তদন্তে নেমেছে শিক্ষা অধিদপ্তর

আরও দেখুন

এরকম আরও খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close